যে কারণে প্রাথমিক সহকারী শিক্ষকদের ১০ম গ্রেড দাবী নয় – অধিকার

যে কারণে প্রাথমিক সহকারী শিক্ষকদের ১০ম গ্রেড দাবী নয়, অধিকার –

▶মাধ্যমিকের সহকারী শিক্ষক পদে নিয়োগ যোগ্যতাঃ স্নাতক সমমান – ১০ম গ্রেড ৷
▶পুলিশের সাব ইন্সপেক্টর পদে নিয়োগ যোগ্যতাঃ স্নাতক সমমান- ১০ম গ্রেড ৷
▶নার্সদের নিয়োগ পদে যোগ্যতাঃ এসএসসি/এইচএসসি ( ডিপ্লোমা ইন নার্সিং) – ১০ম গ্রেড ৷
▶উপ সহকারি কৃষি অফিসার পদে নিয়োগ যোগ্যতাঃ এস এস সি (৩/৪ বছর কৃষি ডিপ্লোমা) – ১০ম গ্রেড ৷
▶ইউনিয়ন সচিব পদে নিয়োগ যোগ্যতা আগে ছিল এইচ এস সি বর্তমানে স্নাতক সমমান – ১০ম গ্রেড ৷
বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ে প্রশাসনিক কর্মকর্তা পদে নিয়োগ যোগ্যতাঃ স্নাতক সমমান – ১০ম গ্রেড ৷
▶এছাড়া একই সিলেবাস, একই কারিকুলাম ও একই শিক্ষার্থী নিয়ে পি টি আই সংলগ্ন পরীক্ষণ বিদ্যালয়ে শিক্ষক নিয়োগ যোগ্যতাঃ স্নাতক (২য় শ্রেণি) ,দেড় বছরের ডিপ্লোমা ইন এডুকেশন (ডিপিএড) -১০ম গ্রেড ৷
▶প্রাথমিক সহকারী শিক্ষকদের শিক্ষাগত যোগ্যতা স্নাতক (২য় বিভাগ) সমমান হলেও ১০ম গ্রেড পেতে শুধুমাত্র আমলাতান্ত্রিক প্রতিবন্ধকতা ৷
⏩প্রাথমিক শিক্ষকরা কোমলমতি শিশুদের উন্নত জীবনের স্বপ্ন দর্শনে উদ্বুদ্ধ করেন ৷ পড়াশুনা শেষ করে মহৎ পেশায় নতুন নিয়োগ পাওয়া একজন সহকারী শিক্ষক ১৩ তম গ্রেডে বেতন পায় ১১০০০/- স্কেলে
(১১০০০+৪৯৫০+১৫০০+২০০) মোট ১৭৬৫০/- টাকা। তবে কল্যাণ তহবিল ও স্ট্যাম্প কর্তন (১৫০+১০) = ১৬০/- টাকা বাদে ১৭৪৯০/- উত্তোলন করতে পারে।

⏩মাসিক এ বেতনে সংকুলান না হলে অনেক ক্ষেত্রে ঋণের বোঝা মাথায় নিয়ে হতাশা ও মনোকষ্ট নিয়ে যাপিত জীবন অতিবাহিত করছে ৷ আর এ কারণেই মেধাবীরা এ পেশায় আসছে না, ছুটছে অন্য পেশায় ৷
⏩সে জন্য আসুন সবাই আমরা একতাবদ্ধ হয়ে ১০ম গ্রেড, আমাদের অধিকার আদায়ে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করি ৷

কপিঃ Abdul Kasem Mukul

About Nazmul Hasan

Hi! I'm Nazmul Hasan. From Koyra, Khulna. I'm Student of Under National University of Govt. B. L. College, Khulna, Department of Political Science....

Check Also

প্রাইমারি শিক্ষক নিয়োগ ২০২৪ এডমিট কার্ড

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের প্রবেশপত্র ডাউনলোড করবেন যেভাবে। সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক পদে প্রথম ধাপের …